মঙ্গলবার, ০৫ মার্চ ২০২৪

শিরোনাম

ঋণের ভারে ডুবছে যুক্তরাষ্ট্র!

বুধবার, জানুয়ারী ৩, ২০২৪

প্রিন্ট করুন

ওয়াশিংটন ডিসি, ‍যুক্তরাষ্ট্র: ঋণের ভারে ডুবতে বসেছে পৃথিবীর অন্যতম শীর্ষ ধনী দেশ যুক্তরাষ্ট্র। দেশটির সরকারি ঋণ ৩৪ লাখ কোটি মার্কিন ডলার ছাড়িয়েছে, জাতীয় ঋণের পরিমাণে যা রেকর্ড। নাগরিক পিছু ঋণ এক লাখ ডলারের বেশি। আইন অনুযায়ী, কেন্দ্রীয় সরকারের সর্বোচ্চ ঋণসীমা ৩১ দশমিক চার লাখ কোটি ডলার। গেল বছরই সেই সীমা অতিক্রম করে বাইডেন সরকার।

মঙ্গলবার (২ জানুয়ারি) যুক্তরাষ্ট্রের অর্থ দফতরের প্রকাশিত বিবৃতি অনুযায়ী, গত বছরের শেষ প্রান্তিকে রেকর্ড পরিমাণ ডলার ঋণ নিয়েছে বাইডেন প্রশাসন। এতে ইতিহাসে প্রথম বারের মত যুক্তরাষ্ট্রের ঋণ ৩৪ লাখ কোটি মার্কিন ডলার ছাড়িয়েছে। ২০২০ সালের নির্বাচনে প্রেসিডেন্ট বাইডেন জয়ী হওয়ার পর ছয় লাখ কোটি মার্কিন ডলার ঋণ নিয়েছে তার প্রশাসন।

যুক্তরাষ্ট্রের সংবাদ মাধ্যমের তথ্যানুযায়ী, নয়া বছরের প্রথম প্রান্তিকে প্রায় এক লাখ কোটি ডলার ঋণ করতে চায় যুক্তরাষ্ট্র, যা দেশটির ঋণের বোঝা নতুন মাত্রায় নিয়ে যাবে।

সম্প্রতি বিবৃতিতে ব্যাংক অব আমেরিকা শঙ্কা প্রকাশ করে জানায়, কেন্দ্রীয় সরকার যেভাবে ঋণ নিচ্ছে, তা অব্যাহত থাকলে আগামী এক দশকে যুক্তরাষ্ট্রের ঋণ দাঁড়াবে ৫৪ লাখ কোটি ডলারে।

যুক্তরাষ্ট্রের কেন্দ্রীয় সরকার কি পরিমাণ ঋণ নিতে পারে, তার আইনি বাধ্যবাধকতা আছে। আইন অনুযায়ী, দেশটির সর্বোচ্চ ঋণসীমা ৩১ দশমিক চার লাখ কোটি ডলার। গেল বছরই সেই সীমা অতিক্রম করে বাইডেন সরকার। তবে, বহু তর্ক-বিতর্কের পর সাময়িকভাবে ঋণসীমা স্থগিত করা হয়। এটা করা না হলে ঋণখেলাপিতে পড়ে যেত পুরো দেশ।

যুক্তরাষ্ট্রের পর সরকারি ঋণ সবচেয়ে বেশি চীনের। চীনের ঋণের পরিমাণ ১৪ লাখ কোটির বেশি। এরপরই আছে জাপান, যুক্তরাজ্য, ফ্রান্স ও ইতালি।