সোমবার, ২২ জুলাই ২০২৪

শিরোনাম

গাজায় গণকবরের ব্যাপারে ইসরায়েলের কাছে ‘উত্তর’ চাইল যুক্তরাষ্ট্র

বৃহস্পতিবার, এপ্রিল ২৫, ২০২৪

প্রিন্ট করুন

ওয়াশিংটন, যুক্তরাষ্ট্র: যুক্তরাষ্ট্র বুধবার (২৪ এপ্রিল) বলেছে, ‘ইসরায়েলের অবরোধে ধ্বংস হওয়া গাজার দুইটি হাসপাতালে গণকবর আবিষ্কারের পর তারা ইসরায়েলের কাছে ‘উত্তর’ চেয়েছে।’

গাজার সিভিল ডিফেন্স এজেন্সি জানিয়েছে, বুধবার (২৪ এপ্রিল) স্বাস্থ্যকর্মীরা খান ইউনিসের নাসের হাসপাতালে ইসরায়েলের বাহিনীর খুনের শিকার ও গণকবরে প্রায় ৩৪০ জনের মৃদেহের সন্ধান পেয়েছে।

গাজা শহরের আল-শিফা হাসপাতালের চত্বরে দুইটি গণকবরে প্রায় ৩০টি মৃতদেহ পাওয়া গেছে বলে জানা গেছে।

যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা জ্যাক সুলিভান সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমরা উত্তর চাই।’ ‘আমরা এটি পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে ও স্বচ্ছভাবে তদন্ত দেখতে চাই।’

গণকবরগুলোর আবিষ্কার ইউরোপীয় ইউনিয়নের সমর্থনে পরিস্থিতির স্বাধীন তদন্তে জাতিসংঘের দাবি জোরালো হচ্ছে।

ইসরায়েলের সেনাবাহিনীর মুখপাত্র মেজর নাদাভ শোশানি বলেছেন, ‘নাসেরের কবরটি ‘কয়েক মাস পূর্বে গাজাবাসী খনন করেছিল।’

ইসরায়েলের সেনাবাহিনী স্বীকার করেছে, ‘ফিলিস্তিনিদের দেয়া কবরের মৃতদেহগুলো’ জিম্মিদের সন্ধানকারী সেনারা পরীক্ষা করেছিল। তবে, এ হত্যাকান্ডের পেছনে ইসরায়েলের সেনারা ছিল- এমন অভিযোগের বিষয়ে তিনি সরাসরি কিছু বলেননি।

গাজায় ছয় মাসেরও বেশি সময় চলমান যুদ্ধে আন্তর্জাতিক আইনে সুরক্ষা পাওয়া হাসপাতালগুলো বার বার ইসরায়েলের বোমাবর্ষণের শিকার হয়েছে। হামাস পরিচালিত অঞ্চলের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের হিসাবে, ইসরায়েলের প্রতিশোধমূলক নির্বিচার এ হামলায় গাজায় কমপক্ষে ৩৪ হাজার ২৬২ জন বেসামরিক নাগরিকের মৃত্যু হয়েছে। যাদের বেশিরভাগই মহিলা ও শিশু।