মঙ্গলবার, ০৫ মার্চ ২০২৪

শিরোনাম

নেভাদা বিশ্ববিদ্যালয়ে বন্দুকধারীর গুলিতে তিনজনের মৃত্যু

বৃহস্পতিবার, ডিসেম্বর ৭, ২০২৩

প্রিন্ট করুন

লাস ভেগাস, নেভাদা, যুক্তরাষ্ট্র: যুক্তরাষ্ট্রের নেভাদা রাজ্যের একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে বন্দুকধারীর গুলিতে তিনজন নিহত ও অপর একজন গুরুতর আহত হয়েছেন। পরে, পুলিশের গুলিতে ওই হামলাকারীও নিহত হয়। বুধবার (৬ ডিসেম্বর) বেলা ১১টা ৪০ মিনিটের দিকে এ হামলার ঘটনা ঘটে। খবর এএফপির।

লাস ভেগাসের নেভাদা বিশ্ববিদ্যালয়ে এ ঘটনা ছিল যুক্তরাষ্ট্রে সর্বশেষ বন্দুক হামলা। লাস ভেগাস হচ্ছে দেশটির জুয়া খেলার কেন্দ্রস্থল। আর সেখান থেকে স্বল্প দূরত্বে নেভাদা বিশ্ববিদ্যারয়ের অবস্থান। সেখানে বন্দুক হামলার ঘটনা দৈনন্দিন জীবনের একটি স্বাভাবিক অংশ হয়ে দাঁড়িয়েছে।

লাস ভেগাসের শেরিফ কেভিন ম্যাকমাহিল সংবাদ সম্মেলনে বলেন, ‘বন্দুকধারীর হামলায় ‘নিহত তিনজনের মৃত্যু নিশ্চিত করা হয়েছে।’

তিনি আরো বলেন, ‘বন্দুক হামলায় গুরুতরভাবে আহত চতুর্থ ব্যক্তির অবস্থার উন্নতি হয়েছে ও তার অবস্থা বর্তমানে স্থিতিশীল রয়েছে।’

এ হামলার ঘটনার পর যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন বিবৃতিতে কলেজ ক্যাম্পাসে এমন বন্দুক হামলাকে ভয়ঙ্কর কাজ হিসেবে উল্লেখ করে এর নিন্দা জানিয়েছেন।

কেভিন ম্যাকমাহিল সংবাদ সম্মেলনে বলেন, ‘বেলা ১১টা ৪৫ মিনিটে এ বন্দুক হামলার খবর পাওয়ার কয়েক মিনিটের মধ্যেই পুলিশ সেখানে অভিযান চালায়।’

নেভাদা বিশ্ববিদ্যালয়ের পুলিশ প্রধান অ্যাডাম গার্সিয়া বলেন, ‘দুই পুলিশ কর্মকর্তা তাৎক্ষণিকভাবে সন্দেহভাজন ওই ব্যক্তির সাথে বন্দুক যুদ্ধে জড়িয়ে পড়েন। এ সময় সন্দেহভাজন ব্যক্তি গুলিবিদ্ধ হয়ে মারা যায়।
বিশ্ববিদ্যালয়ের বাহিরে শিক্ষার্থীদের একটি সমাবেশ চলাকালে এ ঘটনার সূত্রপাত হয়।

ম্যাকমাহিল বলেন, ‘ছাত্ররা গেম খেলছিল ও খাবার খাচ্ছিল। সেখানে লেগোস তৈরি করার জন্য তাদের টেবিল সেট করা হয়েছিল।’

‘এ ঘটনায় পুলিশ তাৎক্ষণিকভাবে পদক্ষেপ না নিলে আরো অনেকের প্রাণ যেত।’

পুলিশ নিহতদের বা বন্দুকধারীর পরিচয় সম্পর্কে আর কোন তথ্য দেয়নি। তারা নিহতদের আত্মীয়দের জানানোর প্রক্রিয়া শুরু করেছে।

লাস ভেগাস হচ্ছে জুয়া খেলার ও বিনোদনের কেন্দ্রস্থল। এ কারণে প্রতি বছর লাখ লাখ পর্যটক লাগ ভেগাসে আসেন।