মঙ্গলবার, ০৫ মার্চ ২০২৪

শিরোনাম

ফের বাড়ানো হয়েছে এলপিজির মূল্য

মঙ্গলবার, জানুয়ারী ২, ২০২৪

প্রিন্ট করুন

ঢাকা: তরলীকৃত পেট্রোলিয়াম গ্যাসের (এলপিজি) মূল্য ফের বাড়ানো হয়েছে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন (বিইআরসি)। জানুয়ারিতে এক কেজি তরলীকৃত পেট্রোলিয়াম গ্যাসের দাম নির্ধারণ করা হয়েছে ১১৯ টাকা ৪০ পয়সা। ডিসেম্বরে একই পরিমাণ এলপিজির মূল্য ছিল ১১৭ টাকা দুই পয়সা।

বিইআরসি সূত্রে জানা গেছে, খুচরা গ্রাহকদের মঙ্গলবার (২ জানুয়ারি) সন্ধ্যা ছয়টা থেকে প্রতি কেজি এলপিজি কিনতে অতিরিক্ত দুই টাকা ৪১ পয়সা দিতে হবে।

জ্বালানি নিয়ন্ত্রক সংস্থা নতুন মূল্য ঘোষণা করে বলেছে, খুচরা গ্রাহকদের এখন থেকে ১২ কেজির এলপিজি সিলিন্ডারের জন্য এক হাজার ৪৩৩ টাকা (ভ্যাটসহ) ব্যয় করতে হবে। এর পূর্বে, ১২ কেজির এলপিজি সিলিন্ডারের দাম ছিল এক হাজার ৪০৪ টাকা।

মঙ্গলবার (২ জানুয়ারি) বিইআরসির কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে বিইআরসির চেয়ারম্যান নুরুল আমিন বলেন, ‘সাড়ে পাঁচ কেজি থেকে ৪৫ কেজি পর্যন্ত অন্য এলপিজি সিলিন্ডারের মূল্য এই অনুযায়ী নির্ধারণ করা হবে।’

বিইআরসির সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, ‘অটো গ্যাস’ (মোটরযানের জন্য ব্যবহৃত এলপিজি) প্রতি লিটার ৬৪ টাকা ৪৩ পয়সা থেকে বাড়িয়ে ৬৫ টাকা ৭৬ পয়সা (ভ্যাটসহ) করা হয়েছে।

রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন এলপি গ্যাস কোম্পানির বাজারজাত করা এলপিজির মূল্য একই থাকবে কারণ এটি স্থানীয়ভাবে পাঁচ শতাংশেরও কম বাজার শেয়ার নিয়ে উৎপাদিত হয়।

বিইআরসির কর্মকর্তারা জানান, সৌদি সিপির (চুক্তিদাম) মূল্য বাড়ার কারণে স্থানীয় বাজারে এলপিজির দাম বাড়বে।

বাংলাদেশি এলপিজি অপারেটররা সাধারণত সৌদি সিপির ভিত্তিতে মধ্যপ্রাচ্যের বাজার থেকে তাদের পণ্য আমদানি করে থাকে।

ফেব্রুয়ারিতে রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর গেল বছরের ফেব্রুয়ারিতে স্থানীয় বাজারে এলপিজির সর্বোচ্চ দাম ছিল এক হাজার ৪৯৮ টাকা (প্রতি ১২ কেজি সিলিন্ডার)।