শনিবার, ২৫ মে ২০২৪

শিরোনাম

বন্দর থেকে পণ্য খালাসের সময় কমাতে আধুনিক যন্ত্রপাতি ও প্রযুক্তি বাড়াতে হবে

বুধবার, সেপ্টেম্বর ৭, ২০২২

প্রিন্ট করুন

ঢাকা: দেশের প্রধান বন্দরগুলো থেকে আমদানি পণ্য খালাসের সময় কমিয়ে আনতে আধুনিক যন্ত্রপাতি সংযোজন ও সর্বাধুনিক প্রযুক্তির ব্যবহার বাড়ানোর পরামর্শ দেয়া হয়েছে এক সমীক্ষা প্রতিবেদনে। জাতীয় রাজস্ব বার্ড (এনবিআর) পরিচালিত ‘টাইম রিলিজ স্টাডি ২০২২’ শীর্ষক এক সমীক্ষায় এ পরামর্শ দেয়া হয়েছে।

সোমবার (৫ সেপ্টেম্বর) ঢাকার ওয়েস্টিন হোটেলে এক অনুষ্ঠানে এ সমীক্ষা প্রকাশ করা হয়।

এনবিআর চেয়ারম্যান আবু হেনা মু রহমাতুল মুনিমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামালের বক্তব্যের ভিডিও রেকর্ড শোনানো হয়।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন নৌ পরিবহন মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. মোস্তফা কামাল ও বাংলাদেশে নিযুক্ত সুইজারল্যান্ডের চার্জ্য দ্য অফেয়ার্স সুজানি ম্যুলার।

অনুষ্ঠানে জানানো হয়, বিশ্ব কাস্টমস সংস্থার (ডাব্লি­উসিও) দিক নির্দেশনায় এবং সুইজারল্যান্ড সরকারের আর্থিক ও কারিগরি সহায়তা এ সমীক্ষা পরিচালনা করে এনবিআর। এ সমীক্ষায় মূলত বিভিন্ন আমদানি পণ্য খালাসে বন্দর কেন্দ্রিক কাস্টমস সেবা পেতে কত সময় লাগে, তা সমীক্ষা পরিচালনা করে প্রতিবেদন তৈরি করা হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ‘চট্টগ্রাম বন্দরে পণ্য খালাসের সময় কমিয়ে আনতে কাস্টম সেবার ধাপ কমিয়ে আনার পাশাপাশি সব ডকুমেন্টে অনলাইনে দাখিল ও অনলাইনে কার্যক্রম পরিচালনা করলে অধিক সুবিধা পাওয়া যাবে।’

সমীক্ষায় বেনাপোল বন্দরের সময় কমিয়ে আনতে বন্দরের শেড ব্যবস্থাপনায় স্বয়ংক্রিয় পদ্ধতি চালু ও আধুনিক লোড আনলোডিং করার যন্ত্রপাতি স্থাপনের সুপারিশ করা হয়েছে। আর ঢাকা কাস্টমস হাউজের বিমানের কার্গো হ্যান্ডলিং সক্ষমতা বাড়াতে সর্বাধুনিক প্রযুক্তি, আধুনিক যন্ত্রপাতি ও দক্ষ জনবল বাড়ানোর পরামর্শ দেয়া হয় এতে।

অনুষ্ঠানে আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেন, ‘এ সমীক্ষায় উঠে আসা সুপারিশ বাস্তবায়ন করা হলে বাংলাদেশের উন্নয়শীল দেশের কাতাদের গিয়ে টিকে থাকা সহজ হবে। তাই আমরা এসব সুপারিশ বাস্তবায়ন করতে চাই।’