মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪

শিরোনাম

যুক্তরাষ্ট্রের সাথে বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বৃদ্ধির সুযোগ রয়েছে

বৃহস্পতিবার, অক্টোবর ২৭, ২০২২

প্রিন্ট করুন

ঢাকা: ‘যুক্তরাষ্ট্রের সাথে বাংলাদেশের বাণিজ্য ও বিনিয়োগের অনেক সুযোগ রয়েছে। এ সুযোগকে কাজে লাগাতে হবে। ফরেন ডাইরেক্ট ইনভেস্টমেন্টের ক্ষেত্রে বাংলাদেশ সরকার বেশকিছু সুযোগ-সুবিধা ঘোষণা করেছে। যুক্তরাষ্ট্রের বিনিয়োগকারীরা বাংলাদেশে বিনিয়োগ করলে অধিক লাভবান হবেন।’

বৃহস্পতিবার (২৭ অক্টোবর) ঢাকায় প্যানপ্যাসিফিক সোনারগাঁও হোটেলে আমেরিকান চেম্বার অফ কমার্স ইন বাংলাদেশ (এমচ্যাম) আয়োজিত ‘২৮তম ইউএস ট্রেড শো-২০২২’ এর উদ্বেধনী অনুষ্ঠানে বাণিজ্য মন্ত্রী টিপু মুনশি এসব বলেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী মন্ত্রী আরো বলেন, ‘যুক্তরাষ্ট্রের সাথে বাংলাদেশের বৈদেশিক বাণিজ্য দিন দিন বাড়ছে। চলমান পৃথিবীতে অস্থির পরিস্থিতিতেও যুক্তরাষ্ট্র বাংলাদেশের তৈরী পোশাক রপ্তানি একক দেশ হিসেবে সর্ববৃহৎ বাজার। বিশ্ব বাজারে তৈরী পোশাক রপ্তাতিকারক দেশগুলোর মধ্যে বাংলাদেশের অবস্থান এখন দ্বিতীয়। তৈরী পোশাক ছাড়াও বাংলাদেশ হিমায়িত খাদ্যপণ্য, চামড়াজাত পণ্য যুক্তরাষ্ট্রে সুনামের সাথে রপ্তানি হচ্ছে।’

তিনি বলেন, ‘আইটি খাতের আউটসোর্সিংয়ের বড় বাজার যুক্তরাষ্ট্র। বিগত ২০২১-২০২২ অর্থ বছরে বাংলাদেশ প্রায় দশ দশমিক ৪১ বিলিয়ন মার্কিন ডলার দামের পণ্য রপ্তানি করেছে। বাংলাদেশের মোট রপ্তানির প্রায় বিশভাগ আসে যুক্তরাষ্ট্র থেকে।’

বাণিজ্য মন্ত্রী বলেন, ‘যুক্তরাষ্ট্রের অনেক পণ্য বাংলাদেশে আমদানি হয়। বর্তমানে এ আমদানির পরিমান প্রায় তিন বিলিয়ন মার্কিন ডলার। আমদানি পণ্যের মধ্যে রয়েছে এ্যারোপ্লেন, কটন, গম, সোয়াবিন তেল এবং আইসিটি পণ্য।’

বাংলাদেশে এনার্জি, অবকাঠামো নির্মাণ, যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়ন, এগ্রো বিজনেস, আইসিটি, শিক্ষা, পর্যটন খাতে বিনিয়োগের বিপুল সম্ভাবনা রয়েছে বলেও মন্ত্রী উল্লেখ করেন।

এমচ্যামের প্রেসিডেন্ট সৈয়দ এরশাদ আহমেদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন ঢাকায় সফররত এসিসটেন্ট সেক্রেটারি অফ কমার্স ফর গ্লোবাল মার্কেট এন্ড ডাইরেকটর জেনারেল অফ দি ইউএস এন্ড ফরেন কমার্সিয়াল সার্ভিস অরুণ ভেনকাটারাম্যান, ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত পিটার হাস।

এর আগে টিপু মুনশি ও ঢাকায় সফররত অরুণ ভেনকাটারাম্যান বাংলাদেশে যুক্তরাষ্ট্রের কমার্সিয়াল সার্ভিসের ঢাকা অফিস উদ্বোধন করেন।