বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

শিরোনাম

সাড়ে তিন বছর সেন্সর বোর্ডে আটক ফারুকীর ‘শনিবার বিকেল’

মঙ্গলবার, আগস্ট ৯, ২০২২

প্রিন্ট করুন

ঢাকা: সারা পৃথিবীকে নাড়িয়ে দেয়া গুলশানের হলি আর্টিজানে জঙ্গি হামলার ঘটনার ছায়া অবলম্বনে সিনেমা তৈরি করেছিলেন মোস্তফা সরয়ার ফারুকী। সিনেমাটির নাম ‘শনিবার বিকেল’। পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে এটি প্রদর্শিত হয়েছে। পেয়েছে প্রশংসা। তবে চলচ্চিত্রটি বাংলাদেশে এখনো মুক্তিই পায় নি।

তবে গত চার বছর ধরে চলচ্চিত্রটি সেন্সর বোর্ডে ঝুলছে। মুক্তির আবেদন জানিয়ে সাড়ে তিন বছর আগে আপিলও করেন ফারুকী। তাতে লাভ হয় নি।

বাংলাদেশের সেই হৃদয়বিদারক ঘটনা নিয়ে তৈরি চলচ্চিত্র বিদেশে সাড়া ফেলেছে। অথচ নিজ দেশে মুক্তিই পায় নি- বিষয়টিতে হতাশ ও বিরক্ত মোস্তফা সরয়ার ফারুকী।

বিষয়টি নিয়ে রোববার (৭ আগস্ট) নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন ফারুকী।

সেখানে তিনি লিখেছেন, ‘আজকে সকাল সকাল মনটা খারাপ হয়ে গেল! এ রকম কত সকাল যে আমার গেছে। আমি একটা ছবি বানিয়েছি ‘শনিবার বিকেল’ নামে। যেটি সেন্সর বোর্ড সদস্যরা দেখে বিভিন্ন পত্রিকায় ইন্টারভিউ দিয়ে বললেন, ‘আমরা দ্রুতই সেন্সর সার্টিফিকেট দিয়ে দিচ্ছি’। তার পর এক অদৃশ্য ইশারায় ছবিটার দ্বিতীয় শো করে তারা। এবং তার পর বলে দিল, ছবি ব্যান। আমরা আপিল করলাম। আজকে সাড়ে তিন বছর হল আপিলের। কোন উত্তর নাই। ও আমাদেরও বুঝি কিছু বলার নাই। কারণ তারাপদ রায়ের কবিতার মত আমাদের কখন সর্বনাশ হয়ে গেছে আমরা টেরও পাইনি।’

দুই বছর আগে ইস্টার্নকিক নামে একটি আন্তর্জাতিক পোর্টালে সিনেমাটির রিভিউ প্রকাশিত হয়।

সে প্রসঙ্গে এ নির্মাতা লিখেছেন, ‘আজ ‘শনিবার বিকেল’ এর ওপর ইস্টার্নকিকের রিভিউটা হঠাৎ সাজেস্ট করল আমাকে অ্যালগোরিদম। এটা আমি আগে পড়ি নাই। পড়ে মনে হইল আমরা ফুল, পাখি, লতা, পাতা নিয়া ছবি বানাইলে ‘ঠিক আছে’! এমন কিছু বানানো যাবে না, যেখানে আমাদের চেহারা দেখা যায়। কিন্তু আমি তো চিরকাল সেইসব গল্পই বলে আসছি যেখানে আমাদের চেহারা দেখা যায়, সেটা প্রেমের গল্পই হোক আর রাজনীতির গল্পই হোক। আমি তো অন্য কিছু পারি না। তা হলে পাখি সব যে রব করবে, সেটা কি নতুন সুরে করতে হবে? নতুন সুর শিখতে হবে?