শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪

শিরোনাম

হংকংয়ের ব্যবসায়ীদের চট্টগ্রামে বিনিয়োগের আহবান

বুধবার, এপ্রিল ২৪, ২০২৪

প্রিন্ট করুন

ঢাকা: হংকং ট্রেড ডেভলপমেন্ট কাউন্সিলের সিনিয়র ইকোনমিস্ট গ্যারি এনজি চিটাগাং চেম্বারের নেতাদের সঙ্গে বুধবার (২৪ এপ্রিল) সকালে সিটির আগ্রাবাদের ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারস্থ চেম্বারের কার্যালয়ে মত বিনিময় করেছেন। এ সময় চেম্বারের সভাপতি ওমর হাজ্জাজ, হংকং ট্রেড ডেভেলাপমেন্টের দক্ষিণ এশিয়া কনসালট্যান্ট মিত্র ডেভ এবং চেম্বারের পরিচালকরা বক্তব্য দেন।

সভায় ওমর হাজ্জাজ বলেন, ‘কৃষি প্রধান বাংলাদেশে শিল্পায়নের জন্য সরকার ১০০টি বিশেষায়িত অর্থনৈতিক অঞ্চল স্থাপনের উদ্যোগ নিয়েছে। পাশাপাশি, বন্দর নগরী চট্টগ্রামকে দক্ষিণ এশিয়ার লজিস্টিক্স ও ইকোনমিক হাবে পরিণত করতে সরকার অবকাঠামোগত উন্নয়নের মাধ্যমে চট্টগ্রাম অঞ্চলকে বিনিয়োগের আকর্ষণীয় গন্তব্যে পরিণত করেছে। চট্টগ্রামে রয়েছে দেশের তথা এশিয়ার সর্ববৃহৎ বঙ্গবন্ধু শিল্প নগর। দেশি-বিদেশী বহু বিনিয়োগকারী এ অর্থনৈতিক অঞ্চলে বিনিয়োগ করছে।’

তিনি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব শিল্প নগর, ব্লু ইকোনমি, এগ্রো প্রসেসিং, ফুটওয়্যার ও গভীর সাগরে মাছ ধরার জাহাজ তৈরিতে হংকংয়ের ব্যবসায়ীদের বিনিয়োগের আহবান জানান।

গ্যারি এনজি বলেন, ‘দক্ষিণ এশিয়ায় বাংলাদেশ উদীয়মান অর্থনৈতিক দেশে পরিণত হয়েছে। পাশাপাশি, এখানে রয়েছে বিশাল জনসংখ্যার বাজার। বাংলাদেশের লোকাল মার্কেটে হংকংয়ের প্রোডাক্ট কিভাবে বিপণন করা যায় তার অংশ হিসেবে আমাদের এ সফর। আমরা বাংলাদেশে হংকংয়ের বিভিন্ন সেক্টরে বিনিয়োগের ক্ষেত্র যাচাই-বাছাই করছি। এ জন্য আমরা সরকারের বিভিন্ন সংস্থার পাশাপাশি বেসরকারি খাতে ব্যবসায়ী ও চেম্বার এসোসিয়েশনগুলোর সঙ্গে আলোচনা করছি। এর মাধ্যমে আমরা উপযুক্ত ক্ষেত্র চিহ্নিত করে হংকংয়ের ব্যবসায়ীদের বাংলাদেশে বিনিয়োগের আহবান জানাব।’

চট্টগ্রাম চেম্বারের অন্য পরিচালকরা বলেন, ‘কৃষি ক্ষেত্রে উন্নত প্রযুক্তি, খাদ্য প্রক্রিয়াজাতকরণ, খেলনা ও ফার্নিচার শিল্পের বৃহৎ বাজার রয়েছে এ দেশে। তাই, হংকংয়ের ব্যবসায়ীরা চাইলে বাংলাদেশী বিনিয়োগকারীদের সঙ্গে যৌথভাবে এসব খাতে বিনিয়োগ করতে পারেন।’